ভারত থেকে ভুট্টা আমদানি ১০ হাজার টন

সাতক্ষীরার ভোমরা স্থলবন্দর দিয়ে ৪ মাসে সাড়ে ১০ হাজার টন ভুট্টা আমদানি করা হয়েছে। এসব ভুট্টার প্রতিটন আমদানি মূল্য পড়েছে ১৯-২০ হাজার টাকা।

ব্যবসায়ীরা বলছেন, মাছ ও পশুখাদ্য উৎপাদনে চাহিদা বাড়ায় ভুট্টা আমদানি বেড়েছে। ভোমরা কাস্টমস শুল্কস্টেশনের রাজস্ব শাখা থেকে প্রাপ্ত তথ্যে জানা গেছে, চলতি ২০২০-২১ অর্থবছরের প্রথম চার মাস (জুন-অক্টোবর) পর্যন্ত ভোমরা স্থলবন্দর দিয়ে ভুট্টা আমদানি হয়েছে ১০ হাজার ৫৮৯ টন।

পশু ও মৎস্য খাদ্য হিসেবে চাহিদা বৃদ্ধি পাওয়ায় স্থানীয়ভাবেও কৃষিপণ্যটির উৎপাদন বাড়ছে। সাতক্ষীরা জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর থেকে জানা গেছে, চলতি মৌসুমে জেলার সাতটি উপজেলায় ভুট্টা উৎপাদন হয়েছে ৭ হাজার ৪৫৫ টন। এর মধ্যে সদর উপজেলায় ১ হাজার ৫৭৫ টন, কলারোয়ায় ১ হাজার ৫০, তালায় ১ হাজার ২৬০, দেবহাটায় ৬৩০, কালীগঞ্জে ৯৪৫, আশাশুনিতে ৮৪০ ও শ্যামনগর উপজেলায় ১ হাজার ১৫৫ টন।

এ সময়ে ৭১০ হেক্টর পরিমাণ জমিতে ভুট্টা চাষ হয়। এরমধ্যে সাতক্ষীরা সদরে ১৫০ হেক্টর, কলারোয়ায় ১০০ হেক্টর, তালায় ১২০ হেক্টর, দেবহাটায় ৬০ হেক্টর, কালীগঞ্জে ৯০ হেক্টর, আশাশুনিতে ৮০ হেক্টর ও শ্যামনগরে ১১০ হেক্টর।

সাতক্ষীরা সদর উপজেলার এল্লারচর এলাকায় ভুট্টা ভাঙানো মিল ও আমদানিকারক প্রতিষ্ঠানের স্বত্বাধিকারী আব্দুল মালেক জানান, অন্য যেকোনো বছরের তুলনায় চলতি ২০২০-২১ অর্থবছরে জেলায় ব্যাপক হারে মাছের খাদ্য হিসেবে ভুট্টা ব্যবহার হচ্ছে। এজন্য মাসে ৫০০-৬০০ টন ভুট্টা আমদানি করা হয়ে থাকে। এসব ভুট্টা গুঁড়ো করে জেলার বিভিন্ন মাছ ও গবাদি পশু খামারে বিক্রি করা হয়। আমদানীকৃত এসব ভুট্টার বর্তমান দর কেজিপ্রতি সাড়ে ১৯-২০ টাকা পড়ছে।

ভোমরা স্থলবন্দরের সিঅ্যান্ডএফ এজেন্ট ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠান মেসার্স নিরাপদ ট্রেডার্সের স্বত্বাধিকারী মোস্তাফিজুর রহমান নাসিম জানান, তার প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে ঢাকার ভুট্টা আমদানিকারক প্রতিষ্ঠান জারা ইন্টারন্যাশনাল প্রতিদিন ২০-২৫ ট্রাক ভুট্টা আমদানি করছে।

তবে ভোমরা স্থলবন্দর দিয়ে ভুট্টা আমদানি বাড়লেও কৃষিজাত পণ্যে শুল্ক না থাকায় পণ্যটি থেকে বন্দরের কোনো আয় আসছে না বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্টরা।

চলতি অর্থবছরের প্রথম চার মাসে ভুট্টা আমদানি বেড়েছে সঠিক। তবে এ কৃষিজাত পণ্য আমদানিতে সরকারের কোনো রাজস্ব আসে না বলে জানিয়েছেন ভোমরা কাস্টমস শুল্কস্টেশনের দায়িত্বরত বিভাগীয় সহকারী কমিশনার আমীর মামুন।

আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...